নিবন্ধিত হোন |
ইউজার সাইনইন
ই-মেইলঃ
পাসওয়ার্ডঃ
পাসওয়ার্ড ভুলে গেছেন?
ই-মেইলঃ 
বন্ধ করুন (X)
ঢাকা, মঙ্গলবার ১৩ মার্চ ২০১৮, ২৯ ফাল্গুন ১৪২৪, ২৪ জমাদিউস সানি ১৪৩৯
আ'লীগ আইনের শাসনের প্রতি অবিচল
স্টাফ রিপোর্টার
খালেদা জিয়ার জামিনের ঘটনা প্রমাণ করে আওয়ামী লীগ সরকার আইনের শাসনের প্রতি সর্বদায় শ্রদ্ধাশীল ও অবিচল। এখানে অন্য কারও কিছু করার নেই, আদালতের ব্যাপারে আমাদের হস্তক্ষেপ নেই। আদালত পুরোপুরি স্বাধীন। অপরাধ করলে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী এবং এমপি-মন্ত্রীরাও ছাড়

পায় না। আওয়ামী লীগ যদি আদালতের উপর হস্তক্ষেপ করতো, তাহলে আজকে বিএনপি'র নেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার জামিন হতো না। আইনমন্ত্রী বলেছেন, আবারো প্রমাণিত হলো সরকার বিচার কাজে হস্তক্ষেপ করে না।

একইসাথে আওয়ামী লীগ নেতারা বলেছেন, বিএনপি যেন আইনের শাসনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল থাকে এবং খালেদা জিয়ার জামিনের ঘটনাকে সরকারের দুর্বলতা মনে না করে। গতকাল সোমবার জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় কারাগারে আটক বিএনপি চেয়ারপরসন খালেদা জিয়ার অন্তর্বতীকালীন জামিনের আদেশের পর তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় আওয়ামী লীগ নেতারা এসব কথা বলেন।

এ বিষয়ে প্রতিক্রিয়া জানিয়ে আনিসুল হক বলেন, বিএনপি নেতারা সারাদেশে বলে বেড়াচ্ছিলেন আমরা নাকি আদালতে ইন্টারফেয়ার (হস্তক্ষেপ) করছি বলে বেইলটা (জামিন) হচ্ছে না। আজকে প্রমাণিত হলো, বিচার বিভাগ যে স্বাধীন এবং বিচার কাজে সরকার হস্তক্ষেপ করে না।

তবে এই জামিনের মধ্য দিয়ে বিএনপিসহ ২০ দলীয় জোট যেন কোনোভাবেই মনে না করে এখানে সরকারের দুর্বলতা রয়েছে। এ জামিন পাওয়ার মধ্য দিয়ে বিএনপি'র নেতাকর্মীরা যেন হৈ-হুল্লোড় করে অস্থিরতা তৈরি না করে। আইনের শাসনের প্রতি তারা যেনো সম্মান প্রদর্শন করে। এ জামিনের মধ্য দিয়ে তারা (বিএনপি) আগামী নির্বাচনের প্রস্তুতি নেবে এ প্রত্যাশা সরকারি দলটির নেতাকর্মীদের।

এ বিষয়ে আওয়ামী লীগের সভাপতিম-লীর সদস্য ড. আব্দুর রাজ্জাক বলেন, খালেদা জিয়ার জামিন আদালতের ব্যাপার। আদালত সুনির্দিষ্ট প্রমাণের ভিত্তিতে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে শাস্তি দিয়েছে। এখানে শাস্তি মাফ হয় নাই। জামিন দিয়েছে মাত্র। এটা কোর্টের ব্যাপার।

এ প্রসঙ্গে দলের আরেক সভাপতিম-লীর অপর সদস্য ফারুক খান বলেন, এটা আদালতের ব্যাপার, আইনের ব্যাপার, হাইকোর্ট মনে করেছে তাই জামিন দিয়েছে। তবে এই জামিনের মধ্য দিয়ে বিএনপিসহ ২০ দলীয় জোট যেন কোনোভাবেই মনে না করে এখানে সরকারের দুর্বলতা রয়েছে। এ জামিন পাওয়ার মধ্য দিয়ে বিএনপি'র নেতাকর্মীরা যেন হৈ-হুল্লোড় করে অস্থিরতা তৈরি না করে। আইনের শাসনের প্রতি তারা যেনো সম্মান প্রদর্শন করে। এ জামিনের মধ্য দিয়ে তারা (বিএনপি) আগামী নির্বাচনের প্রস্তুতি নেবে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি।

এ বিষয়ে কথা হয় আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রহমানের সাথে। তিনি বলেন, খালেদা জিয়ার জামিনের মধ্য দিয়ে প্রমাণ হলো আদালত স্বাধীনভাবে কাজ করছে। এখানে সরকার কোনো হস্তক্ষেপ করছে না। খালেদা জিয়ার বিচারকার্য নিয়ে বিএনপি'র নেতাকর্মীরা সরকারের বিরুদ্ধে যে অভিযোগ উত্থাপন করে আসছিল, জামিনের মধ্য দিয়ে তা মিথ্যা প্রমাণ হলো। খালেদা জিয়ার জামিনের ব্যাপারে আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক এডভোকেট শ ম রেজাউল করিম বলেন, যে কোনো মামলায় আদালত সঙ্গতভাবেই জামিন দিতে পারেন। আমি জেনেছি, দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) এ জামিনের বিরুদ্ধে আপিল করবে। এটি সম্পূর্ণভাবে আদালতের এখতিয়ার।

এ বিষয়ে কথা হয় আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহামুদ চৌধুরীর সাথে। তিনি বলেন, এটা আদালতের বিষয়। দেশে যুদ্ধাপরাধীদের বিচার হয়েছে। বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচার হয়েছে। দেশে সকল দুর্নীতিবাজদের বিচার হয়েছে, হচ্ছে। আইনের শাসন প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। আদালত স্বাধীন। আদালতের ওপর আমাদের কোনো হস্তক্ষেপ নাই।

এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আনার মতামত দিন।
মতামত দিতে চাইলে অনুগ্রহ করে করুন।
আপনার কোন একাউন্ট না থাকলে রেজিষ্ট্রেশন করুন।
এই পাতার আরো খবর -
সর্বাধিক পঠিত
ফটো গ্যালারি
আজকের পত্রিকা
আজকের নামাজের সময়সূচীজুন - ২১
ফজর৩:৪৩
যোহর১২:০০
আসর৪:৪০
মাগরিব৬:৫১
এশা৮:১৬
সূর্যোদয় - ৫:১১সূর্যাস্ত - ০৬:৪৬
পুরোন সংখ্যা
বছর : মাস :
আজকের পাঠকসংখ্যা
৩৭৬৯.০
সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতিঃ সৈয়দ এম. আলতাফ হোসাইন। সম্পাদক : আহ্সান উল্লাহ্। উপদেষ্টা সম্পাদক : মোঃ শাহাবুদ্দিন শিকদার। প্রকাশক ছৈয়দ আন্ওয়ার কর্তৃক রোমাক্স লিমিটেড, তেজগাঁও শিল্প এলাকা থেকে মুদ্রিত। সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : খলিল ম্যানশন (৩য়, ৫ম ও ৬ষ্ঠ তলা), ১৪৯/এ, ডিআইটি এক্সটেনশন এভিনিউ, ঢাকা-১০০০ থেকে প্রকাশিত। ফোন : ৯৩৫৭৭৩০ (বার্তা), ৮৩১৫৬৪৯ (বাণিজ্যিক), ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪.
ই-মেইলঃ djanata@dhaka.net
ফোনঃ ০২৮৩১৫১১৫, ০২৮৩১৫৬৪৯ ফ্যাক্সঃ ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪
Copyright The Dainik Janata © 2010 Developed By : orangebd.com.