নিবন্ধিত হোন |
ইউজার সাইনইন
ই-মেইলঃ
পাসওয়ার্ডঃ
পাসওয়ার্ড ভুলে গেছেন?
ই-মেইলঃ 
বন্ধ করুন (X)
ঢাকা, সোমবার ১৮ জুন ২০১৭, ৪ আষাঢ় ১৪২৪, ২২ রমজান ১৪৩৮
ভারতকে গুড়িয়ে চ্যাম্পিয়ন পাকিস্তান
স্পোর্টস ডেস্ক
আইসিসির মেগা ইভেন্টে ভারতের সঙ্গে জিততে পারে না পাকিস্তান। বিগ মঞ্চে ভারতকে সামনে পেলেই নুইয়ে পড়ে পাক শিবির। দীর্ঘদিন ধরে এমন চিত্র ছিল নিয়মিত। তবে সেই চিত্রে পরিবর্তন আনলো পাকিস্তান। তারা দেখিয়ে দিলো, কিভাবে বিগ মঞ্চে ভারতকে হারানো যায়। সত্যিই, অসাধারণ। গতকাল রোববার দ্য ওভালে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে নতুন ইতিহাসই গড়ল পাকিস্তান। চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতকে স্রেফ উড়িয়ে দিয়ে প্রথমবারের মতো শিরোপা জিতল সরফরাজ শিবির। টস হেরে আগে ব্যাট করতে নেমে পাকিস্তান করে ৪ উইকেটে ৩৩৮ রান। জবাবে বিশ্বমানের ব্যাটিং লাইন আপ নিয়ে ভারত অলআউট মাত্র ১৫৮ রানে, ৩০.৩ ওভারে। ১৮০ রানের বিশাল জয়ে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে নিজেদের আধিপত্য জানালো পাকিস্তান। আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির শিরোপা জিততে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ভারতকে করতে হবে ৩৩৯ রান। লন্ডনের দ্য ওভালে এমন টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই পাক পেসার মোহাম্মদ আমিরের তোপে চাপের মধ্যে ছিল ভারত। দলীয় ৬ রানের মধ্যেই দুটি উইকেট হারায় কোহলি শিবির। প্রথম ওভারের তৃতীয় বলেই মোহাম্মদ আমিরের এলবিডবিস্নউর শিকার হন ব্যক্তিগত শূন্য রানে থাকা রোহিত শর্মা। চাপ সামলাতে পারেননি অধিনায়ক বিরাট কোহলি। আমিরের দ্বিতীয় ও ম্যাচের তৃতীয় ওভারের তৃতীয় বলে বেঁচে যান কোহলি। সস্নিপে ক্যাচ দিলেও তা লুফে নিতে পারেননি আজহার আলী। তবে পরের বলেই আউট কোহলি। আমিরের কৌশলি বোলিংয়ে বিভ্রান্ত কোহলি। লেগের দিকে রান নিতে গিয়ে পয়েন্টে ক্যাচ তুলে দেন। যা দুর্দান্ত ভঙ্গিতে লুফে নেন সাদাব খান। দলীয় ৬ রানের মধ্যে নেই দুটি গুরুত্বপূর্ণ উইকেট। তৃতীয় উইকেট জুটিতে হাল ধরার চেষ্টা করেন ধাওয়ান ও যুবরাজ। সেটাও বেশিক্ষণ স্থায়ী হয় নাই। আবারও আমির ঝলক। এবার বিদায় ওপেনার শিখর ধাওয়ান। ৮.৬ ওভারে আমিরের বলে উইকেটের পেছনে সরফরাজের হাতে ক্যাচ দেন ২১ রান করা ধাওয়ান। ভারতের রান তখন ৩৩। দলের বিপর্যয়ে হাল ধরার চেষ্টা করেছিলেন যুবরাজ সিং। ধীরে ধীরে আগাচ্ছিলেন তিনি। কিন্তু তারপরও রেহাই পাননি। দলীয় ৫৪ রানের মাথায় সাদাবের বলে এলবিডবিস্নউ যুবরাজ। ৩১ বলে চার চারে ২২ রানে ফেরেন তিনি। পরের ওভারেই নেই মাহেন্দ্র সিং ধোনি। স্কোর তখনও ৫৪। ধোনিকে ফেরান আলোচিত বোলার হাসান আলী। ১৬ বলে ৪ রান করে ইমাদের হাতে ক্যাচ দেন ভারতের সাবেক অধিনায়ক। ভারত শিবিরে তখন দুর্যোগের ঘনঘটা। ৭২ রানের মাথায় পড়ে ষষ্ঠ উইকেট। বিদায় নেন কেদার যাদব। ১৬.৬ ওভারে সাদাবের বলে উইকেটের পেছনে সরফরাজের হাতে ক্যাচ দেন ১৩ বলে নয় রান করা যাদব। এর আগে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে ৪ উইকেটে ৩৩৮ রানের বিশাল স্কোর গড়ে পাকিস্তান। দলের হয়ে ঝলমলে সেঞ্চুরি করেন ওপেনার ফাখর জামান।

১০৬ বলে করেন ১১৪ রান। ওপেনার আজহার আলী করেন ৫৯ রান। মোহাম্মদ হাফিজ ৫৭ রানে অপরাজিত ছিলেন। বাবর আজম করেন ৪৬ রান। ২৫ রানে হাফিজের সঙ্গে অবিচ্ছিন্ন ছিলেন ইমাদ ওয়াসিম। ভারতের হয়ে একটি করে উইকেট লাভ করেন ভুবনেশ্বর কুমার, রবীন্দ্র জাদেজা ও হার্দিক পান্ডিয়া।

ভারত অপরিবর্তিত একাদশ নিয়ে ফাইনাল খেলতে নেমেছে; অন্যদিকে পাকিস্তান দলে এক পরিবর্তন এসেছে। আগের ম্যাচে অভিষিক্ত হওয়া রুম্মান রইস বাদ পড়েছেন, তার বদলে সেরা একাদশে ফিরেছেন মোহাম্মদ আমির।
এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আনার মতামত দিন।
মতামত দিতে চাইলে অনুগ্রহ করে করুন।
আপনার কোন একাউন্ট না থাকলে রেজিষ্ট্রেশন করুন।
সর্বাধিক পঠিত
ফটো গ্যালারি
আজকের পত্রিকা
আজকের নামাজের সময়সূচীনভেম্বর - ২১
ফজর৪:৫৮
যোহর১১:৪৫
আসর৩:৩৬
মাগরিব৫:১৫
এশা৬:৩১
সূর্যোদয় - ৬:১৭সূর্যাস্ত - ০৫:১০
পুরোন সংখ্যা
বছর : মাস :
আজকের পাঠকসংখ্যা
৩১৮১.০
সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতিঃ সৈয়দ এম. আলতাফ হোসাইন। সম্পাদক : আহ্সান উল্লাহ্। উপদেষ্টা সম্পাদক : মোঃ শাহাবুদ্দিন শিকদার। প্রকাশক ছৈয়দ আন্ওয়ার কর্তৃক রোমাক্স লিমিটেড, তেজগাঁও শিল্প এলাকা থেকে মুদ্রিত। সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : খলিল ম্যানশন (৩য়, ৫ম ও ৬ষ্ঠ তলা), ১৪৯/এ, ডিআইটি এক্সটেনশন এভিনিউ, ঢাকা-১০০০ থেকে প্রকাশিত। ফোন : ৯৩৫৭৭৩০ (বার্তা), ৮৩১৫৬৪৯ (বাণিজ্যিক), ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪.
ই-মেইলঃ djanata@dhaka.net
ফোনঃ ০২৮৩১৫১১৫, ০২৮৩১৫৬৪৯ ফ্যাক্সঃ ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪
Copyright The Dainik Janata © 2010 Developed By : orangebd.com.