নিবন্ধিত হোন |
ইউজার সাইনইন
ই-মেইলঃ
পাসওয়ার্ডঃ
পাসওয়ার্ড ভুলে গেছেন?
ই-মেইলঃ 
বন্ধ করুন (X)
ঢাকা, মঙ্গলবার ২৭ জুলাই ২০২১, ১২ শ্রাবণ ১৪২৮, ১৬ জিলহজ ১৪৪২
করোনার কারণে স্বরূপকাঠিতে লোকসানের মুখে পড়েছেন পেয়ারা চাষিরা
পিরোজপুর প্রতিনিধি
প্রতিবারের মতো এবারও স্বরুপকাঠী উপজেলায় পেয়ারার ফলন ভালো হলেও চাষিদের মুখে হাসি নেই। কারণ বাণিজ্যিকভাবে পেয়ারার চাষ করে লাভ তো দূরের কথা, উৎপাদন খরচই ওঠাতে পারছেন না উপজেলার চাষিরা। গত দুই বছর করোনার প্রভাবে ক্রেতা পাইকারও তেমন আসছেন না। উপজেলার আটঘর, কুড়িয়ানা, আদমকাঠি, ধলহার, জিন্দাকাঠি, ব্রাহ্মণকাঠিসহ ২৫ গ্রামে ৬৫৭ হেক্টর জমিতে পেয়ারার চাষ হয়। উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে দুই সহস্রাধিক চাষি এ পেয়ারা চাষাবাদ করে আসছেন, আর পেয়ারার চাষাবাদ ও বিপণন ব্যবস্থার সঙ্গে ঐসব এলাকার প্রায় ৬-৭ হাজার শ্রমজীবী মানুষ প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে জড়িত থেকে জীবিকা নির্বাহ করছেন। প্রতি বছরের মতো এবারও আগেই পেয়ারা বাগান কিনে রাখায় লোকসানে পড়েছেন পাইকাররাও। আর যেসব চাষি বাগান বিক্রি করেননি তারা বলেছেন, এবার পেয়ারা বাগানেই পড়ে থাকবে। ব্রাহ্মণকাঠি, আদমকাঠিসহ বিভিন্ন গ্রামের চাষি ও পাইকারদের সঙ্গে কথা বলে এসব তথ্য জানা গেছে।

আদমকাঠি গ্রামের পেয়ারাচাষি প্রিন্স মণ্ডল জানান, এ বছর পেয়ারার ফলন ভালো হলেও উৎপাদন ব্যয় বেশি। কিন্তু দাম অনেক কম। পেয়ারা-আমড়াচাষি সমিতির সহ-সভাপতি দীনেশ মণ্ডল জানান, করোনার কারণে দেশব্যাপী লকডাউনে দূরের ব্যবসায়ীরা আসতে না পারায় পেয়ারার বাজার মন্দা। ফলে বড় ধরনের আর্থিক ক্ষতির শঙ্কা করছেন চাষি ও ব্যবসায়ীরা।

উপজেলার কুড়িয়ানা, আটঘর, আদমকাঠি, জিন্দাকাঠিসহ বিভিন্ন স্থানে প্রতিদিনই পেয়ারার হাট বসে। বর্তমানে পেয়ারা পাইকারিভাবে মণপ্রতি ২০০-২৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। পেয়ারার এ মৌসুমে ঢাকা, কুমিল্লা, সিলেটসহ দেশের বিভিন্ন স্থানের পাইকাররা এখান থেকে সরাসরি পেয়ারা কিনে নিয়ে যেতেন। অপরদিকে স্থানীয় পর্যায়ের ব্যবসায়ীরাও প্রতি দিন শত শত মণ পেয়ারা এখান থেকে লঞ্চ, ট্রলার ও ট্রাকযোগে দেশের বিভিন্ন স্থানে নিতেন। পেয়ারার মৌসুমে বিগত দিনে কৃষক, বাগান মালিক ও ব্যবসায়ীদের পদচারণায় মুখর থাকত ভাসমান পেয়ারার হাট। কিন্তু গত বছর থেকে এ চিত্র পালটে গেছে। করোনার কারণে পাইকারদের আনাগোনা একেবারে কমে গেছে। উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা চপল কৃষ্ণ নাথ বলেন, লকডাউনে কৃষিপণ্য পরিবহণ ও বিপণনে সরকারি কোনো নিষেধাজ্ঞা নেই। কৃষিপণ্য পরিবহণে কোনো সমস্যার কথা শুনলে কৃষি বিভাগ থেকে তাদের পরিচয়পত্র দেয়া হয়। তবে ক্ষতিগ্রস্ত পেয়ারাচাষিরা সহজ শর্তে কৃষিঋণ নিতে পারবেন বলে তিনি জানান। সেক্ষেত্রে কৃষি বিভাগের পক্ষ থেকে তাদের সর্বাত্মক সহযোগিতা করা হবে।

পিরজপুর সদর উপজেলার ৫ নং টোনা ইউনিয়ন পরিষদের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান ইমরান আলম খান হারুন, আজ এক জমকালো অনুষ্ঠানের মাধ্যমে ইউনিয়ন পরিষদ ভবনে বসেন, উক্ত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন পিরোজপুর সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মজিবুর রহমান খালেক, জেলা পরিষদের সম্মানিত চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন মহারাজ, জেলা আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক খান মোহাম্মদ আলাউদ্দিন পি পি জজকোট পিরোজপুর, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি স্বপন মলি্লক, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, রেজাউল করিম মন্টুসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ, ইমরান আলম খান হারুন বলেন, এই ইউনিয়ন সদর উপজেলার ভিতর একটি অবহেলিত এলাকা, এই ইউনিয়নকে মডেল ইউনিয়ন হিসাবে গড়ে তুলবার চেষ্টা করবো ইনশাআল্লাহ। মাদক সন্ত্রাস এবং বাল্যবিবাহের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষণা করেন, আগামী দুই বছরের ভিতর এই ইউনিয়নের সকল রাস্তাঘাট উন্নয়নের আওতায় নিয়ে আসবেন বলে অঙ্গীকার করেন।
এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আনার মতামত দিন।
মতামত দিতে চাইলে অনুগ্রহ করে করুন।
আপনার কোন একাউন্ট না থাকলে রেজিষ্ট্রেশন করুন।
এই পাতার আরো খবর -
সর্বাধিক পঠিত
ফটো গ্যালারি
আজকের পত্রিকা
আজকের নামাজের সময়সূচীসেপ্টেম্বর - ২৪
ফজর৪:৩২
যোহর১১:৫১
আসর৪:১২
মাগরিব৫:৫৬
এশা৭:০৯
সূর্যোদয় - ৫:৪৭সূর্যাস্ত - ০৫:৫১
পুরোন সংখ্যা
বছর : মাস :
আজকের পাঠকসংখ্যা
৬৯৯১.০
সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতিঃ সৈয়দ এম. আলতাফ হোসাইন। সম্পাদক : আহ্সান উল্লাহ্। প্রকাশক ছৈয়দ আন্ওয়ার কর্তৃক রোমাক্স লিমিটেড, তেজগাঁও শিল্প এলাকা থেকে মুদ্রিত। সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : খলিল ম্যানশন (৩য়, ৫ম ও ৬ষ্ঠ তলা), ১৪৯/এ, ডিআইটি এক্সটেনশন এভিনিউ, ঢাকা-১০০০ থেকে প্রকাশিত। ফোন : ৯৩৫৭৭৩০ (বার্তা), ৮৩১৫৬৪৯ (বাণিজ্যিক), ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪.
ই-মেইলঃ djanata123@gmail.com, bishu.janata@gmail.com
ফোনঃ ০২৮৩১৫১১৫, ০২৮৩১৫৬৪৯ ফ্যাক্সঃ ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪
Copyright The Dainik Janata © 2010 Developed By : orangebd.com.