নিবন্ধিত হোন |
ইউজার সাইনইন
ই-মেইলঃ
পাসওয়ার্ডঃ
পাসওয়ার্ড ভুলে গেছেন?
ই-মেইলঃ 
বন্ধ করুন (X)
ঢাকা, শুক্রবার ৮ নভেম্বর ২০১৯, ২৩ কার্তিক ১৪২৬, ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪১
খাগড়াছড়িতে ফসলি জমিতে ৪৩ ইটভাটা
খাগড়াছড়ি থেকে নুরুল আলম
খাগড়াছড়িতে কোনো নিয়ম-নীতির তোয়াক্কা না করে অনুমোদন ছাড়াই ঘনবসতি এলাকা ও ফসলি জমিতে একের পর এক গড়ে উঠছে অবৈধ প্রায় ৪৩টি ইটভাটা। জানা যায়, পরিবেশ অধিদফতর ও সরকারি দফতর থেকে ছাড়পত্র না নিয়ে এই ইটভাটাগুলোর জন্য পাহাড় ও ফসলি জমিরসহ বিভিন্ন স্থান থেকে মাটি কেটে ইট তৈরির কাজ চলছে।

খাগড়াছড়ির বিভিন্ন এলাকায় প্রশাসনের অনুমোদন এবং পরিবেশ অধিদফতরের ছাড়পত্র ছাড়াই ফসলি জমি ও ঘনবসতি এলাকায় গড়ে উঠছে ইটভাটা। ভুক্তভোগীরা জানান, ইটভাটার কালো ধোঁয়ার কারণে আশপাশের ফসলি জমির উৎপাদন এবং ফলজ গাছের ফলন কমে যাবে আশংকাজনক হারে। এছাড়া ফসলি জমির উপরিভাগের মাটি কেটে নেয়া হলে জমির উর্বরতা কমে যাবে।

পরিবেশ রক্ষা আন্দোলনকারীদের অভিযোগ, পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্র ছাড়াই ফসলি জমি ও ঘনবসতি এলাকায় গড়ে উঠছে ইটভাটা। এদিকে গুইমারা উপজেলায় ৫টি ইটের ভাটা রয়েছে তার মধ্যে দুইটি নতুন এবং তিনটি পুরাতন। নতুন ইটভাটাগুলোতে পাহাড় কেঁটে ইট তৈরির জন্য মাটি সংরক্ষণ করা হচ্ছে। নতুন ইটভাটার গুলোর মধ্যে একটি হলো সিন্দুকছড়ি আর দ্বিতীয়টি হলো চিংলি পাড়া এলাকায়।

অন্যদিকে, গুইমারার আমতলী পাড়ায় ২টি এবং বাইল্যছড়ি একটি অন্যান্য উপজেলায় ৩৮ ইটভাটা রয়েছে।

এসব ইটভাটা গুলো নিয়ন্ত্রন করে জেলা ও উপজেলা ইটভাটার মালিক দ্বারা গঠিত সমিতির মাধ্যমে সভাপতি সম্পাদক এসকল ভাটাগুলো পরিচালনার জন্য বিভিন্ন সংস্থার সাথে যোগাযোগ রেখে অবৈধভাবে ইট পোড়ানোর কাজ করে থাকে। জেলা প্রশাসক প্রতাপ চন্দ্র বিশ্বাস বলেন, আমি নতুন আসছি ইটভাটার পরিসংখান আমার জানা নেয় তবে ইটভাটাগুলোর বৈধ কোনো কাগজ পত্র আছে কিনা তা তদন্তের সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।
এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আনার মতামত দিন।
মতামত দিতে চাইলে অনুগ্রহ করে করুন।
আপনার কোন একাউন্ট না থাকলে রেজিষ্ট্রেশন করুন।
এই পাতার আরো খবর -
সর্বাধিক পঠিত
ফটো গ্যালারি
আজকের পত্রিকা
আজকের নামাজের সময়সূচীএপ্রিল - ৭
ফজর৪:২৮
যোহর১২:০১
আসর৪:৩১
মাগরিব৬:২০
এশা৭:৩৪
সূর্যোদয় - ৫:৪৫সূর্যাস্ত - ০৬:১৫
পুরোন সংখ্যা
বছর : মাস :
আজকের পাঠকসংখ্যা
৪০৮৪.০
সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতিঃ সৈয়দ এম. আলতাফ হোসাইন। সম্পাদক : আহ্সান উল্লাহ্। প্রকাশক ছৈয়দ আন্ওয়ার কর্তৃক রোমাক্স লিমিটেড, তেজগাঁও শিল্প এলাকা থেকে মুদ্রিত। সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : খলিল ম্যানশন (৩য়, ৫ম ও ৬ষ্ঠ তলা), ১৪৯/এ, ডিআইটি এক্সটেনশন এভিনিউ, ঢাকা-১০০০ থেকে প্রকাশিত। ফোন : ৯৩৫৭৭৩০ (বার্তা), ৮৩১৫৬৪৯ (বাণিজ্যিক), ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪.
ই-মেইলঃ djanata123@gmail.com, bishu.janata@gmail.com
ফোনঃ ০২৮৩১৫১১৫, ০২৮৩১৫৬৪৯ ফ্যাক্সঃ ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪
Copyright The Dainik Janata © 2010 Developed By : orangebd.com.